উঁচু নিচুর সম্মান

সম্নান করিয়া বাবুসাব বলিয়া
মুছিতে জুতার ধূলি,
আপনাদের চরণে লাগাই যখন
আমাদের অঙ্গুলি গুলি।

রিক্সায় তুলিয়া আপনাকে যখন
বহু দূর যাইতেও লয়ে,
ক্লান্ত শরীরে ঘামটি ঝরাইয়া
কষ্ট গুলো যাই সয়ে।

ধুর ছাই করিয়া ছুড়িয়া মারেন
পারিশ্রমিকের মূল্য,
দিয়েছি যতটা শ্রম আর সম্মান
ইহা কি তার সমতুল্য?

যাদের মুখেতে শুনছেন আজি
বাবু সাহেব কিংবা স্যার,
তাদের কারণে সম্মানিত আপনি
ভাবিয়া দেখেন একবার।

সম্মানের যতো উচ্চতরো জায়গা
যেখানেই আপনি বসেন,
তাহার উঁচুর কেউ কি আপনায়
ততোটা সম্মান করেন?

যতটা মহান আজিকে আপনি
ভাবিছেন নিজের জ্ঞানে,
এই নিচুদের নত শিরে সাহেব
ভর দিয়েছেন সব খানে।

কামার কুমার ছুতার ধোপা নাপিত
সোনারু ময়রা জেলে,
বিনয়ী হইবেন ঘরামি ও কাহার
তাহাদের কাউকে পেলে।

আপনি ঘরেতে বসিয়া যখন
করিতেন জ্ঞানের চর্চা,
চাষারা আপনার আহার যোগাইতে
মাঠেতে সইতো বর্ষা।

ছুতার বানাইত বসিবার চেয়ার
নাপিত কাটিত দাড়ি কেশ,
আপনার পিছেতে সবার অবদান
হইবেনা বলে তারি শেষ।

ভিক্ষুক দেশের লবন কিনিয়া
দিছেন যে কর মানিয়া রেট,
তাহার বলেই দেখিয়াছেন আপনি
বিশ্ববিদ্যালয়ের গেট।

বিজ্ঞ হইয়া দেশেতে আসিয়া
দাঁড়াতেই মাথা তুলি,
সকল বোঝা মাথা তুলিয়া নেয়
আমাদের দেশের কুলি।

সিঁড়ি ছাড়া কেহ উঠতে কী পারে
বারো তলাটার ছাদে,
তবে বলো কেনো সিড়ির স্রষ্টাকে
সম্মান দিতে আজ বাধে?

—সমাপ্ত—

1618total visits,1visits today

এস এম মঞ্জুর রহমান

Leave a Reply