সমাধির আঁধারে

নিথর হবো পাথর সম এই দুনিয়ার পরে,
যেদিন আমার আঁখি যুগল বুজবে চির তরে।

কেউবা ডাকবে লাশ আমায় কেউবা মৃত দেহ,
ভয়ে সবাই থাকবে দূরে,প্রিয় তমা যে সেও ।

কাঁদতে পারে আপন জনে ব্যথার চাদর মুড়ে,
তবুও আমায় দিবে বিদায় সারা জাহান জুড়ে।

যার মতো সেই বলবে সবাই বিদায় বেলায় এসে,
বিলম্বতে লাশটি আমার পঁচবে অবশেষে।

এতো দিনে এই যে বসত অন্তরঙ্গ প্রীতি,
রবেনা কেউ আপন তখন এটাই ভবের রীতি।

জানে সবাই আঁধার আমার ভীতির বড় কারণ-
তবুও আমায় রাখতে একা করবে না কেউ বারণ।

এতো রঙ্গিন আলো ঝলমল রূপ রস শোভা গন্ধ,
থেমে যাবে সব কোলাহল নিশ্বাস হতেই বন্ধ।

এতো মায়া এতো ভালবাসা স্নেহ আদর সম্মান,
সবই সেদিন মিথ্যাই হবে মিথ্যা হবে সবজ্ঞান।

সারা জাহান করিবে পর পড়ে রব এক লাশ,
সঙ্গে পাবো এক সমাধি আঁধারে করতে বাস।

আজিকার এই উচ্ছ্বাস হাসি স্বপ্ন বাসনা আশ,
গুটিয়ে নিব জীবন তরী ফাঁকা করে চারপাশ।

পথিক আমি ভুবন মাঝে ছিলাম অথিতি ভাই,
ক্ষমায় দেখো সব অপরাধ যবে আমি আর নাই।

944total visits,1visits today

এস এম মঞ্জুর রহমান